দেওয়ানগঞ্জে ট্রেন আটকে দিল উত্তেজিত জনতা

জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে প্রকাশ্যে ছুরিকাঘাতে যুবককে হত্যার প্রতিবাদে স্থানীয় উত্তেজিত জনতা ঢাকা থেকে দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার ট্রেন আটকিয়ে মানববন্ধন করেছে।

সোমবার (১৬ মে) হত্যাকারী ইল্লাল সর্দার ও তার মায়ের ফাঁসির দাবিতে স্থানীয় বাসিন্দারা একত্রিত হয়ে গাবতলী এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল ও ট্রেন লাইন অবরোধ করে মানববন্ধন করেন।

- Advertisement -

উপজেলার পৌরশহরের চরভবসুর পূর্বপাড়া এলাকার বাসিন্দা সামিউলের ছেলে সোহানুর রহমান সোহানকে হত্যা করে একই এলাকার মাসকটের ছেলে ইল্লাল সরদার। যার প্রেক্ষিতে স্থানীয় বাসিন্দারা বিক্ষোভ ও মানববন্ধনের আয়োজন করে।

মানববন্ধনে শত শত মানুষ একত্রিত হয়ে ইল্লাল সরদারের ফাঁসির দাবিতে স্লোগান দিতে থাকে। ট্রেনলাইন অবরুদ্ধ করে মানববন্ধন করলে আটকা পড়ে ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার ট্রেন। যার কারণে সঠিক সময়ে ট্রেনটি নির্দিষ্ট গন্তব্যে পৌঁছাতে পারেনি।

দেওয়ানগঞ্জ বাজার রেলওয়ে স্টেশনের স্টেশন মাস্টার আব্দুল বাতেন বলেন, মানববন্ধনের কারণে দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার ট্রেনটি স্টেশনে পৌঁছাতে ২০/২৫ মিনিট বিলম্বিত হয়। বিলম্ব হলেও যাত্রীদের তেমন কোনো অসুবিধা হয়নি। অন্যান্য ট্রেন যথাসময়েই ছেড়ে গিয়েছে।

উল্লেখ্য, গতকাল (রোববার) নিহত সোহান মিয়ার দূরসম্পর্কের আত্মীয় অটোচালক ফকির আলীর সঙ্গে অভিযুক্ত ইল্লাল সরদারের অটোতে ওঠা নিয়ে বাগ্‌বিতণ্ডা হয়। পরে অটোচালক তার আত্মীয়স্বজন ও সোহানকে সঙ্গে নিয়ে ইল্লালের বাড়িতে যান। ইল্লালকে বাড়িতে না পেয়ে তারা চলে আসেন।

পরে বিকালে নিহত সোহান গাবতলী এলাকায় ঘুরতে গেলে অভিযুক্ত ইল্লাল ছুরি দিয়ে সোহান মিয়ার বুকে আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন সোহান মিয়া। পরে স্থানীয়রা আহতাবস্থায় সোহানকে উদ্ধার করে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আপনার মতামত দিন
- Advertisement -